দ্বাদশ শ্রেণি বাংলাঃ ভাত গল্প

ভাত গল্প থেকে ‘দ্বাদশ শ্রেণি বাংলাঃ ভাত গল্প’ পোষ্টটিতে কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর প্রদান করা হলো। শিক্ষার্থীদের সুবিধার্থে ভবিষ্যতে আর অনেক ছোট ও বড়ো প্রশ্নের উত্তর প্রদান করা হবে। 

দ্বাদশ শ্রেণি বাংলাঃ ভাত গল্প ছোট প্রশ্নের উত্তরঃ 

১) “ উনি হলেন দেবতার সেবিকা। ” – ‘ উনি ‘ বলতে কার কথা বােঝানাে হয়েছে?

ক) বড়াে বউ 

খ) মেজো বউ 

গ) বড়ো পিসিমা 

ঘ) বাসিনী 

 

২) “ দূরদর্শী লােক ছিলেন। ” – দূরদর্শী লােকটি হল –

ক) বড়াে পিসিমা 

খ) বুড়ো কর্তা 

গ) হরিচরণ 

ঘ) মহানাম শতপথি

 

৩) “ মানুষের সঙ্গে বিয়ে দিও না। ” – বলেছিল-

ক) বড়াে পিসিমা 

খ) মেজো পিসিমা 

গ) ছােটো পিসিমা 

ঘ) বাসিনী দাসী 

 

৪) ” তাঁর বাবার সেবা করেছেন। ” – কার কথা বলা হয়েছে?

ক) বড়াে বউয়ের 

খ) মেজো বউয়ের 

গ) বড়াে পিসিমার 

ঘ) বাড়ির নার্সের 

 

৫) উচ্ছবকে বড়ো বাড়িতে কে নিয়ে এসেছিল? 

ক) ভজন চাকর 

খ) বাসিনী 

গ) তান্ত্রিক 

ঘ) ছােটো বউয়ের বাবা 

 

৬) ” ময়ুরছাড়া কার্তিক” কার সম্পর্কে বলা হয়েছে?  

ক) ভজন চাকর 

খ) সাধন দাশ

গ) বাসিনী

ঘ) উচ্ছব নাইয়া 

 

৭) “ দিতে পারবে না প্রাণে ধরে। ” – যা দিতে না – পারার কথা বলা হয়েছে –

ক) দশটা টাকা 

খ) দশটা পয়সা 

গ) দশটা আনা

ঘ) দশ পােয়া চাল 

 

৮) “ কেনা চাল নয়। ” — চাল যেখান থেকে আসে- 

ক) গ্রাম থেকে 

খ) বাদা থেকে 

গ) শহর থেকে 

ঘ) আড়ত থেকে 

 

৯) বড়ো পিসির কথায় আজকাল থাকে – 

ক) ভালােবাসা 

খ) গােপন অভিপ্রায় 

গ) ইঙ্গিত

ঘ) ঠেস

 

১০) “ বড়াে পিসিমা কি অন্য বাড়ির লােক নাকি? ” জিজ্ঞাসাটি হল-

ক) বড়াে বউয়ের 

খ) বাড়ির শাশুড়ির 

গ) মেজো বউয়ের

ঘ) ছােটো বউয়ের 

 

১১) বুড়াে কর্তার জন্যে বাড়িতে আয়োজিত হচ্ছে- 

ক) ভোজ 

খ) হােম-যজ্ঞি

গ) নামকীর্তন

ঘ) পূজা – অর্চনা 

 

১২) “বুঝি ঘুচে যায়” – কী ঘুচে যাওয়ার কথা বলা হয়েছে?

ক) বড়াে বউয়ের মাছ খাওয়া 

খ) শাশুড়ির মাছ খাওয়া 

গ) ছেলের মাছ খাওয়া 

ঘ) উচ্ছব নাইয়ার ভাত খাওয়া।

 

১৩) “ বেঁধে-বেড়ে শাশুড়িকে খাওয়ানোে তার কাজ”- কার কাজের কথা বলা হয়েছে –

ক) ছােটো বউ – এর 

খ) সেজো বউ – এর 

গ) মেজো বউ – এর 

ঘ) ছোটো ব‌উ -এর

 

১৪) “চা খেয়ে যাবে।’- কে চা খাবে? 

ক) বড়াে বউ 

খ) মেজো বউ 

গ) নার্স 

ঘ) ছোটো ব‌উয়ের বাবা

 

১৫) বিলেতে থাকে –

ক) বড়াে ছেলে

খ) মেজো ছেলে 

গ) সেজো ছেলে 

ঘ) ছােটো ছেলে 

 

১৬) “এগারােটার আগে ঘুম থেকে ওঠে না।” যাদের সম্পর্কে বলা হয়েছে –

ক) বাড়ির নাতি – নাতনিদের 

খ) বাড়ির কর্তা ও তার স্ত্রীর

গ) বাড়ির ছেলেদের 

ঘ) বাড়ির বউদের সম্পর্কে

 

১৭) “এ বাড়ির ছেলেদের চাকরি করা হয়ে ওঠেনি”- কারণ –

ক) তারা ঘরজামাই থাকে 

খ) তারা এগারােটার আগে ঘুম থেকে ওঠে না

গ) তারা অসুস্থ। 

ঘ) তারা বাড়ির কাজে ব্যস্ত 

 

১৮) ‘ভাত’ গল্পের বুড়াে কর্তার কতগুলি দেবত্রবাড়ির উল্লেখ করা হয়েছে? 

ক) পনেরােটি 

খ) সতেরােটি 

গ) আঠারােটি 

ঘ) বত্রিশটি 

 

১৯) শ্বশুরের ঘরে বসে বড়াে বউ যা ভাবতে চেষ্টা করে –

ক) কর্তার অবর্তমানে সে কী করবে 

খ) কর্তার মৃত্যুর পর বাড়ির কী অবস্থা হবে 

গ) কর্তার মৃত্যুর পর পিসিমা সব আত্মসাৎ করবে 

ঘ) সংসারটি বড়াে নড়বড়ে হয়ে যাবে 

 

২০) লােকটা সম্পর্কে বামুন ঠাকুর কী বলল?

(ক) ভাত খাবে কাজ করবে।

(খ) দিনমজুরি হিসেবে কাজ করবে।

(গ) মাসকাবারি মজুরির ভিত্তিতে কাজ করবে।

(ঘ) সময়-অবসরে এসে কাজ করবে।

 

২১) শ্বশুরমশায়কে বড়াে বউ মনে করে –

ক) সংকীর্ণমনা 

খ) মহাকৃপণ 

গ) অর্থলােপ 

ঘ) ঠাকুরদেবতা 

 

২২) বড় বউ বুড়াে কর্তার জন্য কীসের শরবত আনে? 

ক) ইসবগুলের

খ) নুন – চিনির 

গ) ঠান্ডা ঘােলের 

ঘ) মুসাম্বি লেবুর 

 

২৩) বুড়ো কর্তা খেতে আসার কতক্ষণ আগে রুটি -লুচি করতে হত-

ক) দশ মিনিট 

খ) পঁচিশ মিনিট 

গ) পনেরাে মিনিট 

ঘ) পাঁচ মিনিট

 

২৪) “আজ এই যজ্ঞি হােম হচ্ছে ” -কারণ

ক) তান্ত্রিক বলেছে 

খ) বড়ো পিসিমা বলেছে 

গ) বাড়ির সবাই বলেছে 

ঘ) ডাক্তার বলেছে

 

২৫) “এক তান্ত্রিক এনেছেন”- কে তান্ত্রিক এনেছে?

ক) বড়াে বউয়ের বােন 

খ) ছােটো বউয়ের পিসিমা 

গ) ছােটো বউয়ের বাবা 

ঘ) বাড়ির ছােটো ছেলে নিজেই

 

২৬) ” কালাে বিড়ালের লোম আনতে গেছে ” -কে? 

ক) ভজন চাকর 

খ) বড়াে পিসিমা 

গ) বড়াে বউ 

ঘ) উচ্ছব 

 

২৭) উচ্ছব নাইয়াকে আনা হয়েছে –

ক) রান্নার জন্য 

খ) কাঠ কাটার জন্য 

গ) ভিখিরি বিদায়ের জন্য 

ঘ) যজ্ঞের প্রসাদ খাওয়ানাের জন্য 

 

২৮) চাল থরে থরে সাজানাে —

ক) রান্নাঘরে 

খ) বারান্দায় 

গ) উঠোনে

ঘ) ডোলে ডােলে

 

২৯) অন্ত্রিক হােমে বসার আগে খাওয়াদাওয়া সারতে হবে –

ক) এক ঘন্টার মধ্যে 

খ) ধীরেসুথে 

গ) দু – ঘন্টার মধ্যে 

ঘ) ঝপ করে 

 

৩০) তান্ত্রিক বসেছিল –

ক) বুড়াে কর্তার ঘরে 

খ) ওপরের হল – ঘরে। 

গ) ঠাকুরদালানে 

ঘ) নীচের হলঘরে

 

৩১) “এই যে দিই”- কথাটি বলেছে –

ক) বাসিনী 

খ) সাধন দাশ 

গ) উচ্ছব নাইয়া 

ঘ) সতীশ মিস্তিরি 

 

৩২) রামশাল চালের ভাত যার সলে খাওয়া হয়-

ক) ডাল – তরকারি  

খ) সবজি 

গ) মাংস 

ঘ) মাছ 

 

৩৩) ‘কনকপানি’ চালের ভাত খান –

ক) বড়ােবাবু 

খ) মেজবাবু 

গ) ছােটবাবু 

ঘ) পিসিমা 

 

৩৪) বড়াে বাড়িতে মেজো ও ছােটো ছেলের জন্য বারােমাস কোন চাল রান্না হয়? 

ক) ঝিঙেশাল 

খ) রামশাল 

গ) পদ্মজালি 

ঘ) কনকপানি 

 

৩৫) বাবুদের বাড়িতে ভাত রান্না হয়— 

ক) চার রকম 

খ) তিন-রকম 

গ) পাঁচ- রকম 

ঘ) ছয় – রকম 

 

৩৬) “বাদায় এদের এত জমি। চাল এনে ” – কী করছে? 

ক) বিতরণ করেছে 

খ) নষ্ট করেছে 

গ) পাহাড় করে

ঘ) বিক্রি করে

 

৩৭) লুকিয়ে লুকিয়ে চাল বিক্রি করে –

ক) বড়াে বউ 

খ) বড়াে পিসিমা 

গ) বাসিনী 

ঘ) মেজো বউ 

 

৩৮) “তা দে দেখি বাসিনী” – ‘তা’ বলতে বােঝানাে হয়েছে 

ক) চাল 

খ) ধান 

গ) সবজি

ঘ) ভাত

 

৩৯) “বাসিনী ব্যাগ্যতা করি তাের ” বক্তা হল-

ক) মেজো বউ 

খ) হরিচরণ নাইয়া

গ) সতীশ মিস্ত্রি

ঘ) উচ্ছব

 

৪০) ‘ব্যাগ্যতা’ কথার অর্থ –

ক) অনুরােধ 

খ) হুকুম

গ) আদেশ

ঘ) সম্মান 

 

৪১) “পিসিমা দেকতে পেলে সর্বনাশ হবে” – যা দেখার বিষয়ে বলা হয়েছে –

ক) চাল দেওয়ার বিষয় 

খ) কাজ না – করা 

গ) কাঠ না – কাটা

ঘ) কথাবার্তা বলা

 

৪২) “আমি ঠিক তাগেবাগে দে ঝাব” — ‘তাগেবাগে’- এর অর্থ –

ক) সুবিধামতাে 

খ) সুযােগ বুঝে 

গ) সময়ান্তে 

ঘ) শেষবেলায়

 

৪৩) বাসিনী কী নাড়াতে নাড়াতে চলে যায়? 

ক) হাত

খ) পা 

গ) আঁচল 

ঘ) মাথা 

 

৪৪) “বউ কাঁপছিল” – বউ কাঁপছিল কেন?

ক) ভয়ে ও আতঙ্কে 

খ) শীতে আর ভয়ে 

গ) ক্ষুধার তীব্রতায় 

ঘ) প্রচণ্ড জ্বরে 

 

৪৫) বাতাসের চাবুকে কোন নদীর জল ছটফটিয়ে উঠেছিল? 

ক) মাতলা নদীর

খ) জলঙ্গি নদীর 

গ) কাবেরি নদীর 

ঘ) অজয় নদের 

 

৪৫) “মাটিতে লুটোপুটি গেল” — কী লুটোপুটি খেল? 

ক) উচ্ছদের বাড়িঘর 

খ) উচ্ছবের গাছপালা 

গ) উচ্ছবদের সংসার 

ঘ) বুড়োকর্তার সংসার

 

৪৬) “সকাল হতেই বােঝা গিয়েছিল”-কী বােঝা গিয়েছিল? 

ক) সংসারের অবস্থা 

খ) ঝড়ের ভয়াবহতা 

গ) জলের প্রাবল্য 

ঘ) সর্বনাশের বহর 

 

৪৭) “উচ্ছব নেয় না। ” – কী না – নেওয়ার কথা বলা হয়েছে? 

ক) সাধন দাশের কথা 

খ) মহানাম শতপথির মন্ত্র 

গ) সতীশ মিস্তিরির কথা 

ঘ) বাসিনীর অনুরােধ 

 

৪৮) মুখবদ্ধ কৌটোর মধ্যে রাখা ছিল –

ক) জমির দলিল 

খ) জমি – চেয়ে দরখাস্তের নকল

গ) উপার্জিত সমস্ত টাকা

ঘ) গয়না

 

৪৯) শ্ৰাদ্ধশান্তি করার জন্য গ্রামের লােক খবর দিয়েছিল 

ক) তান্ত্রিকমশাইকে

খ) সতীশ মিস্ত্রিকে

গ) মহানাম ব্রম্মচারীকে 

ঘ) মহানাম শতপতিকে

 

৫০) “হঠাৎ খুব বুদ্ধিমান সাজতে চায়”- কে বুদ্ধিমান সাজে? 

ক) উচ্ছব

খ) সতীশ

গ) সাধন 

ঘ) বাসিনী 

 

৫১) বাসিনীর মনিবের বাড়িটি উচ্ছব দেখেছিল-

ক) পাশের বাড়ি থেকে 

খ) দূর থেকে

গ) বাইরে থেকে 

গ) ভিতর থেকে 

 

৫২) বুড়াে কর্তার মন্দিরের ত্রিশূলটি ছিল –

ক) সােনার 

খ) ব্রোঞ্জের 

গ) রুপাের 

ঘ) পিতলের 

 

৫৩) কোন মাসে ধান বড় হয়ে গিয়েছিল –

ক) বৈশাখ 

খ) আষাঢ় 

গ) আশ্বিন 

ঘ) কার্তিক 

 

৫৪) “আগে মনে হয়” – আগে কী মনে হয় বলে উল্লেখ আছে? 

ক) ঘরবাড়ি ভেসে যাওয়ার কথা

খ) ধানখেতে আগুন লাগার কথা 

গ) ধানখেত ডুবে যাওয়ার কথা 

ঘ) বউ – ছেলে – মেয়ের ভেসে যাওয়ার কথা 

 

৫৫) “ সে খুঁটি রাখতে চায় না। ” – কে খুঁটি রাখতে চায় না। 

ক) ভগবান

খ) মা বসুমতী

গ) মা গঙ্গা 

ঘ) মাতলার জলরাশি 

 

৫৬) “উগরে ফেলে দেবে”- কী ফেলে দেওয়ার কথা বলা হয়েছে? 

ক) ঘরের মাঝ খুঁটি 

খ) কাগজ – সহ কৌটো 

গ) গিলে ফেলা ভাত 

ঘ) সেদ্ধ ভাত ও – ঘুগনি 

 

৫৭) “ফুট খায়”- কে ‘ফুট ‘ খায়? 

ক) সাধনবাবুর নাতি 

খ) সতীশবাবুর নাতি 

গ) বড়াে পিসিমার নাতি

ঘ) উচ্ছবের ছেলে 

 

৫৮) “খনখনিয়ে ওঠে”-  কে খনখনিয়ে উঠছিল? 

ক) বড়ো পিসিমা 

খ) বড়াে বউমা 

গ) মেজো বউমা 

ঘ) সতীশবাবুর স্ত্রী 

 

৫৯) “তুমি হাত চালাও”- কাকে হাত চালাতে বলা হয়েছে? 

ক) বাসিনী কে

খ) ভজন চাকরকে

গ) উচ্ছবকে 

ঘ) বাড়ির দারােয়ানকে 

 

৬০)  “বড়াে উতলা করে” – কী উতলা করে তােলে?  

ক) স্ত্রী – ছেলে – মেয়ের মুখ

খ) ফুটন্ত ভাতের গন্ধ 

গ) হােম – যজ্ঞে পােড়া ঘি

ঘ) গ্রামের স্মৃতি 

 

৬১) বাসিনী শাক ধুতে এসেছিল –

ক) পুকুরঘাটে 

খ) কলতলায় 

গ) উঠোনে

ঘ) কলঘাটে 

 

৬২) বাসিনী লুকিয়ে উচ্ছবকে কী খেতে দিয়েছিল? 

ক) চিড়ে 

খ) মুড়ি 

গ) বাতাসা 

ঘ) ছাতু

 

৬৩) “ভাঁড় চেয়ে নিয়ে জল খায়”- উচ্ছব ভাঁড়টা চেয়ে নেয় –

ক) পাশের লােকের থেকে 

খ) পাশর বাড়ি থেকে

গ) মিষ্টির দোকান থেকে

ঘ) দোকানদারের কাছ থেকে

 

৬৪) উচ্ছবের গাঁ জ্ঞেয়াতিরা তাকে ছেরাদ্দ সেরে নেওয়ার কথা বলেছিল –

ক) দক্ষিণেশ্বরে 

খ) কালীঘাটে 

গ) কেওড়াতলায় 

ঘ) গয়ায় 

 

৬৫) “তােমার ঘরে রান্না হয়” – এখানে যার ঘরের কথা বলা হয়েছে সে হল –

ক) সতীশ মিস্তিরি 

খ) সাধন দাশ 

গ) মহানাম শতপথি 

ঘ) হরিচরণ নাইয়া 

 

৬৬) পেটে ভাত না থাকায় উচ্ছব যেন-

ক) পাগল হয়ে আছে 

খ) প্রেত হয়ে আছে 

গ) পাথর হয়ে আছে

ঘ) নির্দয় হয়ে আছে 

 

৬৭) উচ্ছব কাঠ কেটেছিল —

ক) দু মণ

খ) আড়াই মণ

গ) দেড় মণ 

ঘ) তিন মণ 

 

৬৮) “বাইরে ঝেয়ে বসব?”- প্রশ্নটি কে  কাকে করেছিল?  

ক) উচ্ছব , বড়াে বউকে

খ) বড়াে পিসিমা , বড়াে বউকে 

গ) উচ্ছব , বড়াে পিসিমাকে 

ঘ) উচ্ছব , বাসিনীকে 

 

৬৯) মন্ত্র বলে তান্ত্রিক রােগ বেঁধে ফেলেন – 

ক) বেড়ালের কালাে লােমে

খ) কালাে বেড়ালের লােমে 

গ) ঘােড়ার ল্যাজের লােমে 

ঘ) টোড়া সাপের খােলসে 

 

৭০) “ডাক্তারকে কল দিন”- কথাটি বলেছিল-

ক) বড়াে বউ 

খ) বড়াে পিসিমা 

গ) নার্স

ঘ) মেজো বউ

 

৭১) ‘ব্যাদিটা’ কর্তার দেহ থেকে বেরিয়ে এল – 

ক) তড়িঘড়ি করে 

খ) হাঁচোড় – পাঁচোড় করে 

গ) ব্যস্তসমস্ত হয়ে 

ঘ) ধীরে ধীরে 

 

৭২) “…জল পড়লে পেট মানতে চায়নে মােটে”- কোথায় জল পড়ার কথা বলা হয়েছে? 

ক) গায়ে 

খ) দেহে

গ) মাথায়

ঘ) তালুতে

 

৭৩) বাইরে বেড়িয়ে উচ্ছব কোথায় এসে বসল? 

ক) শিবমন্দিরের চাতালে 

খ) কালীমন্দিরের চাতালে 

গ) চণ্ডীমণ্ডপের চাতালে

ঘ) বারান্দার চাতালে 

 

৭৪) উচ্ছব কত দিন ভাত খায়নি? 

ক) প্রায় দিন পনেরাে 

খ) প্রায় কুড়ি দিন 

গ) অনেকদিন 

ঘ) পঁচিশ দিন 

 

৭৫) মন্দিরের চাতালে বসে তিনটি ছেলে –

ক) দাবা খেলছিল 

খ) তাস পেটাচ্ছিল

গ) লুডাে খেলছিল 

ঘ) ছক কাটছিল 

 

৭৬) মন্দিরের চাতালে বসা ছেলেদের মতে হােম – যজ্ঞি করা –

ক) প্রয়ােজনীয় 

খ) ফালতু

গ) অর্থসাপেক্ষ 

ঘ) শ্রমসাপেক্ষ

 

৭৭) “রন্ন হল মা নক্কী” – কথাটি বলত – 

ক) বড়াে পিসি 

খ) বড়াে বউ 

গ) উৎসবের ঠাকুমা 

ঘ) বাসিনী

 

৭৮) চাতালে ঘুমানাে উচ্ছবের ঘুম ভাঙে- 

ক) ডাকাডাকিতে 

খ) হাতের ঠেলায় 

গ) পায়ের ধাক্কায় 

ঘ) ঠেলাঠেলিতে

 

৭৯) বুড়াে কর্তা মারা গেল –

ক) একাশি বছর বয়সে 

খ) বিরাশি বছর বয়সে 

গ) তিরাশি বছর বয়সে 

ঘ) পঁচাশি বছর বয়সে 

 

৮০) বুড়াে কর্তার বেঁচে থাকবার কথা ছিল –

ক) আটানব্বই বছর 

খ) সাতানব্বই বছর

গ) নিরানব্বই বছর 

ঘ) একশাে বছর 

 

৮১) বড়াে পিসিমা কাদের আসবার কথা বলেছিলেন –

ক) কীর্তনদলের 

খ) বােনেদের। 

গ) দিদিদের

ঘ) বােন ও দিদিদের 

 

৮২) ” ফোন করে? ” – ফোন করার কথা বলা হয়েছে –

ক) বড়ােবাজারে 

খ) শ্যামবাজারে 

গ) বাগবাজারে

ঘ) ধর্মতলায়

 

৮৩) রাতে রাতে কাজ সারতে না – পারলে –

ক) দোষ লাগবে 

খ) পাপ লাগবে।

গ) হাজার ঝামেলা আসবে 

ঘ) পুলিশ এসে ঝামেলা করবে

 

৮৪) হােম ছেড়ে উঠে গিয়েছিল 

ক) দুই ছেলে 

খ) তিন ছেলে

গ) তিন মেয়ে 

ঘ) ছেলেমেয়েরা

 

৮৫) “এসব কাজে বিঘ্নি পড়লে রক্ষে অছে?” – এ কথার আলােচনায় বাড়ি –

ক) থমথমে হয়

খ) উথাল – পাথাল হয় 

গ) সরগরম হয়

ঘ) বিষণ্ণ হয়

 

৮৬) বাড়ি থেকে শবদেহ বের করা হয়—

ক) রাত একটার পর 

খ) রাত একটায় 

গ) রাত বারােটায় 

ঘ) রাত পৌনে একটার পর 

 

৮৭) “মুক্ত কর সব”- কী মুক্ত করার কথা বলা হয়েছে? 

ক) শােওয়ার ঘর 

খ) মন্দির

গ) ঘরদোর

ঘ) উঠোন

 

৮৮) ‘কনকপানি’ চালের ভাত খান-

(ক) বড়ােবাবু

(খ) মেজোবাবু

(গ) ছােটোবাবু

(ঘ) পিসিমা

 

৮৯) “দূরে ফেলে দিয়ে আসি”- বক্তা কে? 

ক) বাসিনী 

খ) উচ্ছব

গ) চাকর ভজন 

ঘ) বড়ো ব‌উ

 

৯০) ‘ভােরের টেনে চেইপে’ উচ্ছব যাবে –

ক) কলকাতায়

খ) কাকদ্বীপ

গ) নামখানায় 

ঘ) ক্যানিংয়ে

ভাত গল্প থেকে MCQ প্রশ্নের মক টেষ্ট প্রদান করতে এই লেখাটিতে ক্লিক/টাচ করতে হবে 

দ্বাদশ শ্রেণি বাংলাঃ ভাত গল্প বড়ো প্রশ্নের উত্তরঃ 

১) “তুমি কি বুঝবে সতীশবাবু”- সতীশবাবু কী বুঝবে না? তিনি উচ্ছবের সঙ্গে এমন আচরণ করেছিলেন কেন? ৩+২=৫

উৎসঃ

আধুনিক বাংলা সাহিত্যের স্বনামধন্য লেখিকা “মহাশ্বেতা দেবী”-র “শ্রেষ্ঠ গল্প”-এর অন্তর্ভুক্ত “ভাত” গল্প থেকে প্রশ্নোক্ত অংশটি চয়ন করা হয়েছে।

সতীশবাবুর অবুঝতাঃ

সুন্দরবনের বাদা অঞ্চলের হতদরিদ্র ভূমিহীন চাষি উচ্ছব নাইয়া তার গ্রামের সতীশ মিস্তিরির জমিতে বছরে কয়েকমাস ভাগে চাষ করে তার সংসার চালাতো। মাতলা নদীর পাড়ে তার ছোট্ট কুড়ে ঘড়ে ছেলে-মেয়ে-বউকে নিয়ে সে তার সুখের অমরাবতী গড়ে তুলেছিল।

কিন্তু হঠাৎই এক ঝড়-জলের রাতে মাতলা নদীর সর্বগ্রাসী স্রোত তার সুখের সংসারকে তাসের ঘড়ের মতো ভেঙে দেয়। স্ত্রী, পুত্র, কন্যা সকলকে হারিয়ে শোকে-উপবাসে ক্লান্ত ও বিধ্বস্ত উচ্ছব খিদের জ্বালায় মনিব সতীশ মিস্তিরির শরণাপন্ন হয়। সতীশ মিস্তিরি অবস্থাপন্ন মানুষ। তিনি পাকা ঘরে থাকেন, পাকা ঘরেই চালও মজুত করে রাখেন। উচ্ছবের কথায়- “দেশ জোড়া দুর্যোগেও তোমার ঘরে রান্না হয়।”

তবে এহেন সতীশ মিস্তিরির বাড়ি থেকে হাভাতে উচ্ছবকে বিতাড়িত হতে হয়। তাই হতাশাগ্রস্থ ও ক্ষুব্ধ উচ্ছব সতীশ মিস্তিরির হৃদয়হীনতা প্রত্যক্ষ করে প্রশ্নোক্ত মন্তব্যটি করেছে।

আচরণের কারণঃ

চতুর চরিত্রের অধিকারী সতীশ মিস্তিরি অত্যন্ত বিচক্ষণতার সাথে উচ্ছবকে ফিরিয়ে দিয়েছিলেন। তিনি জানতেন, যখন সকল গ্রামবাসী ক্ষুধায় কাতর তখন যদি তিনি উচ্ছবকে অন্ন প্রদান করেন তবে গ্রামের সকল মানুষ তার কাছে খাদ্যের তীব্র দাবি জানাবে। তাই তিনি বলেন- “তোকে এগলা দিলে চলবে? তাহলেই পালে পালে পঙ্গপাল জুটবে নে?” তাই সতীশ মিস্তিরি উচ্ছবকে বলেন যে, ভগবানের মারের হাত থেকে উচ্ছবকে রক্ষা করার ক্ষমতা তার নেই।

 

দ্বাদশ শ্রেণি বাংলাঃ ভাত গল্প থেকে আরো কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নের উত্তরঃ 

‘ফুটন্ত ভাতের গন্ধ তাকে বড়ো উতলা করে’- ‘তাকে’ বলতে এখানে কাকে ইঙ্গিত করা হয়েছে ? এই গন্ধ তাকে কেন উতলা করে ? 

উত্তর জানতে এখানে ক্লিক/টাচ করতে হবে 

“ভাত” গল্প অবলম্বনে উচ্ছব নাইয়ার চরিত্র আলোচনা করো।

উত্তর জানতে এখানে টাচ/ক্লিক করতে হবে

‘এ সংসারে সব কিছুই চলে বড়ো পিসিমার নিয়মে’- বড়ো পিসিমা কে? গল্পে তার চরিত্রের কী পরিচয় পাওয়া যায়? 

উত্তর জানতে এখানে টাচ/ক্লিক করতে হবে

“বাদার ভাত খেলে তবে তো সে আসল বাদাটার খোঁজ পেয়ে যাবে একদিন”- ‘বাদা’ কাকে বলে? উদিষ্ট ব্যক্তির এইরকম মনে হওয়ার কারণ কী?

উত্তর জানতে এখানে টাচ/ক্লিক করতে হবে

“তার চোখ এখন বাদার কামটের মতো হিংস্র”- কে কার প্রতি এরূপ আচরণ করেছিল? তার এরূপ আচরণের কারণ বিশ্লেষণ করো।

উত্তর জানতে এখানে টাচ/ক্লিক করতে হবে

মহাশ্বেতা দেবীর ‘ভাত’ গল্পটির নামকরণ কতদূর সংগত হয়েছে, তা গল্প অনুসরণে আলোচনা করো।

উত্তর জানতে এখানে টাচ/ক্লিক করতে হবে

‘যা আর নেই, যা ঝড়-জল-মাতলার গর্ভে গেছে তাই খুঁজে খুঁজে উচ্ছ্বব পাগল হয়েছিল’- দুর্যোগটির বর্ণনা দাও। দুর্যোগটি উচ্ছবকে কীভাবে প্রভাবিত করেছিল? 

উত্তর জানতে এখানে টাচ/ক্লিক করতে হবে

শিক্ষালয় ওয়েবসাইটের সকল প্রকার আপডেট নিয়মিত লাভ করতে নিম্নের ফর্মটি যথাযথভাবে পূরণ করতে হবেঃ 

শিক্ষালয় ওয়েবসাইটের কিছু গুরুত্বপূর্ণ লিঙ্ক নিম্নে প্রদান করা হলোঃ

শিক্ষালয়ের সাথে ফেসবুকে যুক্ত হতে নিম্নের ছবিতে ক্লিক/টাচ করতে হবেঃ sikkhalaya

You cannot copy content of this page